‘ভণ্ড’ বললেন পাকিস্তানি নারী, নরম জবাব প্রিয়াঙ্কার

32

ইট মারলে সব সময় পাটকেল মারতে নেই। পরিস্থিতি বিবেচনা করে বুদ্ধির শানে ধার দিয়ে ইট মোকাবেলা করতে হয়—এ উক্তির যথার্থতা প্রমাণ করলেন বলিউড অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা চোপড়া।

ভারতীয় গণমাধ্যম জি নিউজ প্রতিবেদনে জানিয়েছে, সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের লস অ্যাঞ্জেলেসে একটি অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে গিয়েছিলেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। সেখানে বিভিন্ন বিষয়ে তাঁর কাছে জানতে চান পাকিস্তানের এক নারী। আক্রমণাত্মক, উসকানিমূলক প্রশ্নের পরেও সংযত থাকেন পিসি।

পাকিস্তানি ওই নারী প্রিয়াঙ্কার কাছে জানতে চান, জাতিসংঘের শান্তিদূত হয়েও তিনি কেন দেশটিতে পরমাণু বোমা আক্রমণের মতো চিন্তাকে সমর্থন করছেন। পাকিস্তানে প্রিয়াঙ্কার লাখ লাখ সমর্থক রয়েছেন, এ কথাও মনে করিয়ে দিতে ভোলেননি সেই নারী।

মূলত চলতি বছর ফেব্রুয়ারিতে বালাকোট বিমান ধর্মঘটকে সমর্থন করে টুইট করেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। সেখানে তিনি লেখেন, ‘জয় হিন্দ’। প্রিয়াঙ্কার সেই টুইটকে ঘিরেই উসকানি দেন সেই নারী। ‘ভণ্ড’ বলতেও ছাড়েননি প্রিয়াঙ্কাকে।

প্রশ্নের জবাবে বেশ ধীরস্থিরভাবে উত্তর দিতে শুরু করেন ‘দেশি গার্ল’ খ্যাত প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। তিনি বলেন, ‘পাকিস্তানে আমার অনেক ভক্ত থাকলেও আমি ভারতীয়। যুদ্ধকে সমর্থন না করলেও আমি দেশপ্রেমী। আমার কথায় পাকিস্তানের কেউ আঘাত পেলে আমি দুঃখিত।’

নিজের অবস্থানের পক্ষে যুক্তি তুলে ধরতেও ভোলেননি প্রিয়াঙ্কা। বলেন, ‘আমরা প্রত্যেকেই নিজ নিজ অবস্থান থেকে চিন্তা করি। নিশ্চয়ই আপনিও তা করেন।’

পাকিস্তানি ওই নারী বেশ কয়েকবার উত্তেজিত হয়ে পড়লে প্রিয়াঙ্কা তাঁকে শান্তভাবে প্রশ্ন করার অনুরোধ করেন। প্রিয়াঙ্কা আরো বলেন, ‘আমরা সবাই এখানে ভালোবাসার উদ্দেশ্যে এসেছি।’ প্রিয়াঙ্কার বুদ্ধিদীপ্ত উত্তরে হাততালি দেন অনুষ্ঠানস্থলে উপস্থিত থাকা দর্শক।

জনপ্রিয় এ অভিনেত্রীর এমন ইতিবাচক মনোভাব নেটিজেনদের বিপুল প্রশংসা কুড়িয়েছে।

Facebook Comments