না.গঞ্জ জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মতিয়ুর ইসি অফিসার্সের যুগ্ম মহাসচিব নির্বাচিত

57

স্টাফ রিপোর্টার, নারায়ণগঞ্জ
বাংলাদেশ ইলেকশন কমিশন (ইসি) অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশনের নির্বাচনে নারায়ণগঞ্জ জেলা নির্বাচন অফিসার মোহাম্মদ মতিয়ুর রহমান যুগ্ম মহাসচিব পদে বিজয়ী হয়েছেন। এই পদে মোট প্রার্থী ছিলেন ১০ জন। এর মধ্যে একজন ছিলেন সদর উপজেলার সাবেক নির্বাচন অফিসার মোহাম্মদ মমিন মিয়া। তিনি এখন ঢাকার গুলশান থানা নির্বাচন কর্মকর্তা।

গত শুক্রবার রাজধানীর আগারগাঁওস্থ নির্বাচন ভবনে বিকেল ৪টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়।
সংগঠনের ১৫টি পদে ভোট লড়াইয়ে ছিলেন ৯৭ প্রার্থী।

নির্বাচনে যুগ্ম মহাসচিব হিসেবে বিজয়ী করার জন্য মোহাম্মদ মতিয়ুর রহমান ইসি অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশনের সকলের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন।

ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) ও ব্যালট পেপারে ভোট দেন ইসির ৫৬৩ জন কর্মকর্তা। বিভিন্ন পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নামতে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন ১০৪ জন। ৭ জন প্রার্থী তাদের মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে নেন। এর মধ্যে ৪ পদে একক প্রার্থী থাকায় ভোট হয়নি। শুধু নির্বাচন ভবন নয়; দেশের বিভিন্ন জেলা-উপজেলার অনেক কর্মকর্তাও এ নির্বাচনে অংশ নেন।

নির্বাচন কমিশন (ইসি) কর্মকর্তাদের সংগঠন বাংলাদেশ ইলেকশন কমিশন অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশন নির্বাচনে সভাপতি পদে মো. নুরুজ্জামান তালুকদার এবং মহাসচিব পদে মুহাম্মদ হাসানুজ্জামান নির্বাচিত হয়েছেন।

সূত্র জানায়, উপ-সচিব ও মহাপরিচালক ইটিআই মো. নুরুজ্জামান তালুকদার সভাপতি পদে ২৬১ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। আর ইসির উপ-সচিব ও চট্টগ্রামের আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা মো. হাসানুজ্জামান ১৯৪ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন।

বাংলাদেশ ইলেকশন কমিশন অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশন নামে কর্মকর্তাদের এ সংগঠনের যাত্রা শুরু হয় ২০১২ সালে।

উল্লেখ্য, নারায়ণগঞ্জ জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা হিসেবে মোহাম্মদ মতিয়ুর রহমান চলতি বছরের এপ্রিল মাসে যোগদান করেন। এর আগে তিনি নির্বাচন কমিশনার রফিকুল ইসলামের একান্ত সচিব ছিলেন।

Facebook Comments